ঢাকা, বুধবার   ১৮ মে ২০২২,   জ্যৈষ্ঠ ৩ ১৪২৯

আইনিউজ ডেস্ক

প্রকাশিত: ২০:৩৬, ১২ মে ২০২২
আপডেট: ২০:৪০, ১২ মে ২০২২

হয় নাতির মুখ দেখাও, নয়তো পাঁচ কোটি টাকা দাও: ছেলের বিরুদ্ধে মামলা

ছেলের বিরুদ্ধে আদালতে মামলা করেছেন ভারতের এক দম্পতি৷ এক বছরের মধ্যে নাতি-নাতনির জন্ম দিতে না পারলে সাড়ে ছয় লাখ মার্কিন ডলার বা পাঁচ কোটি ভারতীয় টাকা ক্ষতিপূরণ চেয়েছেন তারা। জার্মান সংবাদমাধ্যম ডয়চে ভেলের এক প্রতিবেদনে উঠে এসেছে এমন তথ্য।

সঞ্জীব এবং সাধনা প্রসাদ জানিয়েছেন, পাইলট ছেলেকে বড় করতে এবং পড়াশোনা করাতে নিজেদের জমানো অর্থ খরচ করে প্রায় নিঃস্ব হয়েছেন তারা৷ ছেলের জাঁকজমকপূর্ণ বিয়ের অনুষ্ঠানেও অনেক টাকা খরচ হয়েছে৷ এখন তারা এর প্রতিদান চান৷

গত সপ্তাহে হরিদ্বারের এক আদালতে দায়ের করা আবেদনে তারা জানান, ‘‘আমার ছেলে গত ছয় বছর ধরে বিবাহিত হলেও এখনও সন্তান গ্রহণের পরিকল্পনা করছে না৷ আমাদের যদি অন্তত একটা নাতি বা নাতনি থাকতো, তাহলেও আমাদের যন্ত্রণা অনেকটাই লাঘব  হতো৷``

টাইমস অব ইন্ডিয়া জানিয়েছে, ক্ষতিপূরণ হিসাবে তারা পাঁচ লাখ ভারতীয় টাকা দাবি করেছেন৷ এর মধ্যে রয়েছে পাঁচ তারকা হোটেলে বিয়ের অনুষ্ঠান আয়োজন, ৬০ লাখ টাকা দামের গাড়ি উপহার এবং বিদেশে মধুচন্দ্রিমার খরচও রয়েছে৷

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে ছেলেকে পাইলট হিসাবে প্রশিক্ষণ দেয়ার খরচ হিসাবে ৫০ লাখ টাকা ক্ষতিপূরণ চাওয়া হয়েছে৷ কিন্তু ছেলে দেশে ফেরত এসে আর কোনো চাকরিতে যোগ দেননি৷

আদালতে দায়ের করা পিটিশনে তারা আরো বলেন, ‘‘আমাদের বাড়ি নির্মাণের জন্য ঋণ নিতে হয়েছে৷ এখন আমরা অর্থনৈতিক দুরবস্থার মধ্য দিয়ে যাচ্ছি৷ আমাদের একা থাকতে হয় দেখে আমরা মানসিকভাবেও বিপর্যস্ত৷``

পিটিশনটি শুনানির জন্য ১৭ মে আদালতে উঠবে বলে জানিয়েছেন দম্পতির আইনজীবী অরভিন্দ কুমার।

ভারতে একান্নবর্তী পরিবারে কয়েক প্রজন্মের সদস্যদের একসঙ্গে বাস করার ঐতিহ্য রয়েছে৷ কিন্তু সে পরিস্থিতি দিন দিন বদলাচ্ছে৷ তরুণ প্রজন্মের অনেকেই পরিবারের থেকে আলাদা বাস করার বিকল্প বেছে নিচ্ছেন৷ সন্তান জন্ম দেয়ার চেয়ে ক্যারিয়ারের দিকে বেশি ঝুঁকছেন তরুণেরা৷

আইনিউজ/এসডি

দেখুন আইনিউজ ভিডিও

জাফলংয়ে পর্যটকদের ওপর হামলায় ৫ জন কারাগারে

জাফলংয়ে পর্যটক পেটানো সেই স্বেচ্ছাসেবকদের বিরুদ্ধে যেসব ব্যবস্থা নেওয়া হবে জানালেন এসপি

সিলেট বিভাগের সবচেয়ে বড় এ ঈদগাহে নামাজ পড়বে ১৬ হাজার মানুষ

শহরে বেদে নারীদের চাঁদাবাজি, তাদের লক্ষ্য নিরীহ পথচারী ও যাত্রী

Green Tea
সর্বশেষ
জনপ্রিয়