ঢাকা, সোমবার   ২৯ নভেম্বর ২০২১,   অগ্রাহায়ণ ১৫ ১৪২৮

লাইফস্টাইল ডেস্ক

প্রকাশিত: ১২:৪৮, ৯ অক্টোবর ২০২১
আপডেট: ১৪:৩১, ৯ অক্টোবর ২০২১

পূজার পাঁচ দিন সাজে থাকুক ভিন্নতা

অপেক্ষার আর মাত্র দুই দিন। হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের সবচেয়ে বড় ধর্মীয় উৎসব শারদীয় দুর্গোৎসব শুরু হবে সোমবার (১১ অক্টোবর) বোধনের মধ্য দিয়ে। আর উৎসব মানেই আনন্দ, সাজসজ্জা, নতুন পোশাক পরা, ঘুরে বেড়ানো।

সোমবার (১১ অক্টোবর) ষষ্ঠী, ১২ অক্টোবর সপ্তমী, ১৩ অক্টোবর অষ্টমী, ১৪ অক্টোবর নবমী এবং ১৫ অক্টোবর দশমীর দিন দেবী বিদায় নেবেন। অর্থাৎ দুর্গাপূজার আয়োজন থাকবে পাঁচদিন। প্রতিদিনের উৎসবের সাজেই থাকা চাই ভিন্নতা। 

সেক্ষেত্রে কোন দিন কী ধরনের পোশাক পরবেন বা কীভাবে সাজিয়ে তুলবেন  তা আগে থেকেই পরিকল্পনা করে নিতে পারেন। এতে করে পূজার উৎসবের দিনগুলোতে সাজের ভিন্নতা রাখতে পারবেন খুব সহজেই। 

ষষ্ঠী ও সপ্তমীর হালকা সাজ

ষষ্ঠীর দিনে হালকা সাজ আর তাঁতের শাড়িতে নিজেকে সাজিয়ে তুলুন। এই শাড়ির সঙ্গে মুক্তোর ঝোলানো মালা, চুলে বেলি বা চাঁপাফুল গুঁজে হাতখোঁপা হতে পারে অনবদ্য সাজ। সপ্তমীর সাজটা একটু বদল করে নিন। গাঢ় উজ্জ্বল রঙের কোনো শাড়ি বেছে নিতে পারেন। এক রঙের শাড়ি আর প্রিন্টের বা লেইস বসানো ব্লাউজ পরা যায় এই দিন। আগের দিন খোঁপা হলে এদিনে বেণী চলবে, কিংবা ছেড়ে দেওয়া চুলেই এক পাশে ফুল গুঁজে দিন। কানে বড় ঝোলা দুল আর হাতে চুড়ি, গলা না হয় খালিই থাকুক। হালকা কোনো মব কালারের লিপস্টিক বেছে নিতে পারেন। সপ্তমীর দিনটাতেও হালকা গহনা থাকাই ভালো।

অষ্টমীর সাজে স্নিগ্ধতা

অষ্টমীর সাজটা একটু ব্যতিক্রম হলেই ভালো হয়। সাদা বা অফহোয়াইটের মধ্যে মাল্টিকালার আছে এমন ধরনের জামদানি প্রথম পছন্দ হতে পারে। জামদানি শাড়ি এমনিতেই সাজে ভিন্ন মাত্রা এনে দেয়। ছাই রং, গাঢ় নীল, বেগুনি কিংবা বাদামি রং বাছাই করতে পারেন। কানে ছোট একটা টপ পরে গলায় ভারী ধরনের নেকলেস বা চোকার বেছে নিতে পারেন। ব্যতিক্রমী সাজে সাবেকি গহনা পরে ভিন্নমাত্রা আনা যায়। চুল পরিপাটি করে মধ্যখানে সিঁথি দিয়ে খোঁপা বেঁধে নিন। চুলে তাজা টগর, বেলি বা গাজরার মালা বা ফুল দিয়ে খোঁপা ঢেকে দিতে পারেন। চোখে টেনে কাজল দিন। প্রয়োজনে আইল্যাশও পরতে পারেন। গরমের এই সময়ে মন্ডপেও থাকবে অনেক গরম। তাই সিøভলেস ব্লাউজ বেছে নিতে পারেন। ব্লাউজের রঙের সঙ্গে মিলিয়ে ছোট্ট লাল টিপ পরুন। খুব গরম তাই গাঢ় মেকআপ না করে মিলিম্যালিস্টিক লুকের মেকআপ বেছে নিতে পারেন। হালকা গোলাপি, বাদামি, কমলা এমন ধরনের ম্যাট লিপস্টিক বেছে নিন।

নবমীর সাজে উৎসব

নবমীর দিন অনেকের নেমন্তন্ন থাকে, থাকে নিজের ঘরে অতিথি আপ্যায়নের পালাও। সাজগোজে তাই উৎসবের ভাব ফুটে থাকুক ষোলোআনা। বাদামি বা ফিরোজা এ ধরনের বোল্ড কালারের জামদানি বেছে নিতে পারেন। ভারী গলার হার ও কানে টানা ঝুমকা পরুন। শাড়ির রঙের সঙ্গে মিলিয়ে চোখে আইশ্যাডো দিতে পারেন। হাতে গহনার সঙ্গে মেলানো চুড়ি বা চওড়া ব্রেসলেট চলতে পারে। একপাশে সিঁথি টেনে এলোখোঁপা মানিয়ে যাবে, তাতে পাথরের অনুষঙ্গ জমকালো ভাব যোগ করতে পারেন। কিংবা ঘরে থাকলে চুল ছেড়ে রাখতে পারেন। সাজে আভিজাত্য নিয়ে আসুন নবমী উপলক্ষে। হালকা বেইজের মেকআপ বেছে নিন।

দশমীর জমকালো সাজ

দশমী হলো দুর্গা উৎসবের সমাপনী আয়োজন। এই দিনে নারীদের সবার পছন্দের পোশাক শাড়িতে বেশি দেখা যায়। সকালবেলা যেহেতু সিঁদুর খেলা থাকে তাই অনেকেই দেখা যায় সাদা শাড়ি লাল পাড় পরেন। সাবেকি লাল পেড়ে সাদা শাড়িতেই চলুক সকালের সিঁদুর খেলা। হালকা পাউডার ব্লাসন মুখে বুলিয়ে মেকআপের কাজটা শেষ করে নিন। ঢিলেঢালা চুলের একটা খোঁপা করে নিন। দুপুর বা সন্ধ্যার বিসর্জনের  জন্য একরঙা লাল কাতান বা জামদানি বেছে নিতে পারেন। শাড়িতে সোনালি রঙের নকশা থাকলে আরও ভালো হবে। এই দিনের জন্য সোনার গহনা ভালো মানাবে। চুল কার্ল করে খোলাই রাখুন। কপালে চন্দনের আলপনা দিয়ে মাঝখানে লাল টিপ পরুন।  সিঁদুর সাজে চিরায়ত লুক নিয়ে আসবে। চোখের সাজে চাইলে স্মোকিং লুক বেছে নিতে পারেন। নাকে টানা নোলকও পরা যায়। হাতে ও পায়ে আলতাও ভালো মানাবে।

আইনিউজ/এসডিপি 

Green Tea
সর্বশেষ
জনপ্রিয়